রবিবার, ২২ মে ২০২২, ০৬:২৫ পূর্বাহ্ন

ঘোষনা :
বর্তমান সময়ের জন্য  সকল জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে।  আগ্রহী প্রার্থীগণ জীবন বৃত্তান্ত, পাসপোর্ট সাইজের ১কপি ছবি ও শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদপত্রসহ ই-মেইল পাঠাতে পারেন। মোবাইল: ০১৭৯৩-৫০১৮৫০ ও ০১৯৬৬-৭৮৭৭০৩  ই-মেইল: newsdailybartomansomoy@gmail.com

মহেশখালীতে উন্নয়নের জোয়ারে হোয়ানক অবহেলিত পরিষদের পিছনের গ্রাম-চরম দূর্ভোগে হাজারো পরিবার!

কক্সবাজার প্রতিনিধিঃ মহেশখালী উপজেলার হোয়ানক ইউনিয়ন পূর্ব খোরশাপাড়া গ্রাম।যেখানে প্রায় ৫ শতাধিক পরিবারের বসবাস। তবে তাদের যাতায়াতের কোনো ভালো রাস্তা নেই। পাহাড়ি পানি নামার ছড়া দিয়ে যাতায়াত করে আসছে যুগ যুগ ধরে এই গ্রামের লোকজন। পূর্ব পুরুষ থেকে তাদের বহু আশা আকাঙ্ক্ষা ছিল এই গ্রামে একদিন গাড়ি চলাচল করার মতো রাস্তা হবে তবে সেই স্বপ্ন আর আসা এখনো পূর্ণ হয়নি। এলাকাবাসীরা জানান, প্রতি ৫ বছর পর পর ইউপি নির্বাচণ আসলে এই গ্রামের লোকজন প্রার্থীদের দাবি করে বসে আমাদের একটা যাতায়াতের ভালো রাস্তা করে দিতে হবে।প্রার্থীরা এই গ্রামের সহজ সরল মানুষদের মন ভর্তি আশা দিয়ে সমর্থন আদায় করে নেন।তবে নির্বাচনের পরে আর সেই ইউপি চেয়ারম্যান, মেম্বারদের দেখা মিলেনা। গত ইউপি নির্বাচনেও গ্রামের মানুষ সেই সড়কের জোর দাবি তুলেন নৌকা সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী মোস্তফা কামালের প্রতি তারা বলেন নির্বাচিত হলে আমাদেরকে একটি যাতায়াতের রাস্তা করে দিতে হবে। মোস্তফা কামাল ও বরাবরের মতো বুক ভরা আশা দিয়ে সমর্থন আদায় করে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। পরে তিনিও একি পথে হাঁটতে শুরু করলেন। চেয়ারম্যান হওয়ার পরে ১ বছরেও সেই গ্রামে আর পা দেননি অথচ হোয়ানক ইউনিয়ন পরিষদের পিছনের সড়কটিই পূর্ব খোরশাপাড়া গ্রাম। ইতিমধ্যেই গ্রামের আম জনতারা চেয়ারম্যান অফিসে একাধিক বার রাস্তার কথা বলতে গিয়েছিলেন তবে প্রতিবারই আশ্বাস দিয়েছিলেন বরাদ্দ হবে, সামনে হয়ে যাবে। এভাবেই ২ বছর অতিবাহিত হওয়ার পর ২০১৭ সালে গ্রাম বাসি সবার উদ্যোগে মোহাম্মদ জাবের,নুর কামাল, আমিন, মনজুর আলম, জিয়াউল হক ভান্ডারী সহ অন্যান্যদের নেতৃত্বে এলাকার সবাইকে নিয়ে যাতায়াতের প্রায় ১ কিলোমিটার জায়গা ১২ ফিটে প্রশস্ত করেন। ঐ দিন এলাকাবাসীর অনুরোধে চেয়ারম্যান মোস্তফা কামাল, সাবেক মহিলা ইউপি সদস্য রশিদা বেগম, সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুল মোনাফ কে সাথে নিয়ে স্থানীয়দের উদ্যেগে করা কাজটি পরিদর্শন করেন। পরিদর্শন শেষে তিনি পাহাড়ি ঢলে বালু সরে না যাওয়ার জন্য ১০ হাজার ইট দিয়ে ০৩ টি ব্লক ওয়াল করে দেওয়ার কথা বলেন। ২০১৭ সালের শেষে ২০২১ আসলো ইট দিয়ে কাজ করে দিবে তো দূরের কথা আজ পর্যন্ত কোনোদিন চেয়ারম্যান গ্রামটি দেখতে পর্যন্ত আসেনি। এরই মাঝে রাস্তা প্রবেশপথে ২০০ ফিট মতো উপজেলা এলজিডির প্রকল্পের আওতায় ইটের সলিং বসানো হয়েছে। মুলত যে জায়গাতে মানুষের যাতায়াতের দূর্ভোগ সেটা দূর্ভোগই রয়ে গেছে! গ্রামের মানুষ অভিযোগ করে বলেন,আমরা যুগ যুগ ধরে সুবিধা বঞ্চিত। আমাদের গ্রামটি ইউনিয়ন পরিষদের পিছনে হলেও কোনো ধরনের উন্নয়ন নেই অথচ হোয়ানকের অনেক এলাকায় পানি চলাচলের ছড়ার মাঝখানে গাইট ওয়াল দিয়ে যাতায়াতের জন্য পাকা সড়ক করে দেওয়া হয়েছে।

গ্রামের বিভিন্ন স্কুল কলেজ মাদ্রাসায় পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করে বলেন, আমরা চরম বৈষম্যের শিকার ডিজিটাল বাংলাদেশে বসবাস করে একটি যাতায়াতের রাস্তা না থাকাটা খুবই লজ্জাজনক নির্বাচিত প্রতিনিধিরা আমাদেরকে অবহেলিত করে রেখেছে। আমাদের পার্শ্ববর্তী ইউনিয়ন কালারমারছড়ায় অনেক দূর্গম এলাকায়ও পাকা সড়ক হয়েছে এই ০৫ বছরে যা চোখে পড়ার মতো।আমরা সংশ্লিষ্টদের হস্তক্ষেপ কামনা করছি যাতে এই ৫ শতাধিক পরিবারের কথা চিন্তা করে যাতায়াতের একটি সু ব্যবস্থা করে দেওয়া হয়। এদিকে গ্রামের মানুষকে অবহেলিত রেখে উন্নত বাংলাদেশ গড়া সম্ভব নয়, তাই গ্রামে শহরের সকল সুযোগ সুবিধা পৌঁছে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম। গত ( ৪ অক্টোবর) ২০২০ইং স্থানীয় সরকার বিভাগের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত আমার গ্রাম আমার শহর: প্রতিটি গ্রামে আধুনিক নগর সুবিধা সম্প্রসারণের লক্ষ্যে কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়নয়ে গঠিত আন্ত:মন্ত্রণালয় কমিটির প্রথম সভায় সভাপতির বক্তব্যে মন্ত্রী এ কথা বলেন। স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, ‘সমৃদ্ধির অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ’ শীর্ষক আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহারে প্রতিটি গ্রামে আধুনিক নগর সুবিধা সম্প্রসারণের মাধ্যমে ‘আমার গ্রাম আমার শহর’ উদ্যোগ গ্রহণের বিশেষ অঙ্গীকার করা হয়েছে। এবিষয়ে হোয়ানক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাফা কামাল থেকে মুঠোফোনে জিজ্ঞেস করাহলে তিনি উল্টো দৈনিক বর্তমন সময়ের প্রতিনিধি কে গালমন্দ করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

  • গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের নিয়মানুযায়ী তথ্য মন্ত্রনালয় বরাবর নিবন্ধনের জন্য আবেদিত অনলাইন পত্রিকা । © All rights reserved © 2019 dailybartomansomoy.com
 
Design & Developed BY Anamul Rasel